শাকের বিরাট উপকারিতা ,জেনেনিন কবে কোন সাকের কি উপকার পাবেন।

 আমরা কমবেশি সকলেই জানি সবুজ শাকের উপকারিতা সম্পর্কে ! কেও খেতে ভালোবাসে আবার অনেক সময় ছোটোরা খেতে অপছন্দ করে।  তবে যাই হোক না কেন শাকের কিন্তু মারাত্মক উপকারিতা আছে। সাধারণত রক্তচাপ কমাতে শাকের বিরাট উপকার রয়েছে। এছাড়াও রক্তে হিমোগ্লোবিন প্রস্তুত করতে শাক বিরাট উপকারী। আসুন জেনে নেওয়া যাক কি কি উপকারিতা আছে :



প্রতিদিন খালি পেটে মেথি গাছের পাতা চিবিয়ে খেলে কৃমি মরে যায় এবং রক্তে চিনির পরিমান কমায়।


পুঁই শাক সেদ্ধ করে খেলে সর্দির উপকার পাবেন। পুঁইশাক থেঁতো করে ব্রণের ওপর লাগালে উপকার পাওয়া যায়।


লাল শাক নিয়মিত খেলে হিমোগ্লোবিন বাড়ায়।


কচু শাকে ভিটামিন সি থাকে। উচ্চ রক্তচাপের রোগীকে কচু শাক খাওয়ানো ভালো।


যাদের মধ্যে কোষ্ঠকাঠিন্য থাকে তাদের ক্ষেত্রে পালং শাক উপকারী। পালং শাকের বীজ কৃমির রোগ সারাতে সহায়তা করে। এই শাকের কচিপাতা শরীরের জ্বালাপোড়া সরানোর কাজে লাগে।


আবার কলমি শাক খেলেও কোষ্ঠকাঠিন্যে উপকার হয়। আমাশয়েও উপকার পাওয়া যায় কলমি শাকে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য